AdmissionUniversity Admission

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সিলেকশন পদ্ধতি( ২০২০-২০২১)

যখন সকলের স্বপ্ন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়।প্রায় সকলের অন্তরে ও মনে সাধারণত একটা প্রশ্ন।তাহলো রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘A’ ইউনিটে (মানবিক+অন্যান্য বিভাগ পরিবর্তন) চূড়ান্তভাবে কিভাবে সিলেকশন করা হবে?তবে তথ্য অনুযায়ী জানা গিয়েছে মানবিক শাখা হতে ২৭ হাজার শিক্ষার্থী, বিঙ্গান শাখা হতে ১০ হাজার শিক্ষার্থী এবং বাণিজ্য শাখা হতে ৮ হাজার শিক্ষার্থী পরীক্ষা দিতে পারবে।

Table of Contents

‘A’ ইউনিট (মানবিক+অন্যান্য বিভাগ পরিবর্তন)

শাখাশিক্ষার্থী
বিঙ্গান১০ হাজার
মানবিক২৭ হাজার
বাণিজ্য১০ হাজার

মানবিক শাখা

সিলেকশন রেজাল্ট প্রথমঃ
মনে করুন মানবিক শাখা থেকে সম্ভাব্য রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য প্রাথমিক আবেদন সম্পূর্ণ হয়েছে ৪৮ থেকে ৫১ হাজার শিক্ষার্থীর।এসকল শিক্ষার্থীর মধ্যে থেকে প্রথমত এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ২৭ হাজার জন শিক্ষার্থী অনলাইনে ইন্টারনেটের মাধ্যমে চূড়ান্ত আবেদন করতে দিবে।এসকলের মধ্যে চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করবে প্রায় ১৬ হাজার শিক্ষার্থী। আর যারা চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করতে ব্যর্থ হবে তাদেরকে ২য় বার কোন প্রকারের সুযোগ দেওয়া হবে না।
সিলেকশন রেজাল্ট দ্বিতীয়ঃ

২৭ হাজার রেজাল্টের শেষ জিপিএ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর পয়েন্ট থেকে আবার এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ১১ হাজার অনলাইনের মাধ্যমে চূড়ান্ত আবেদন করতে দিবে। এদের মধ্যে প্রায় ৭ হাজার জন শিক্ষার্থী চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করলো।এছাড়া যারা চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করতে ব্যর্থ হবে তাদেরকে ৩য় বার কোন প্রকার সুযোগ দেওয়া হবে না।

সিলেকশন রেজাল্ট তৃতীয়ঃ

১১ হাজার রেজাল্টের শেষ জিপিএ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর পয়েন্ট থেকে আবার এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ৫ হাজার জন শিক্ষার্থী অনলাইনে ইন্টারনেটর মাধ্যমে চূড়ান্ত আবেদন করতে দিবে।

বিঙ্গান শাখা


সিলেকশন রেজাল্ট প্রথমঃ

মনে করুন বিঙ্গান শাখা থেকে সম্ভাব্য রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য প্রাথমিক আবেদন সম্পূর্ণ হয়েছে ৫২-৫৭ হাজার শিক্ষার্থীর।এদের মধ্যে প্রথমেই এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ১০ হাজার জন শিক্ষার্থী চূড়ান্ত আবেদন করতে দিবে।এদের মধ্যে চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করবে প্রায় ৭ হাজার শিক্ষার্থী। এছাড়া যারা চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করতে পারবে না তাদেরকে ২য় বার কোন সুযোগ দেওয়া হবে না।

সিলেকশন রেজাল্ট দ্বিতীয়ঃ

১০ হাজার রেজাল্টের শেষ জিপিএ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর পয়েন্ট থেকে আবার এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ৩ হাজার জন শিক্ষার্থী চূড়ান্ত আবেদন করতে দিবে। এদের মধ্যে প্রায় ২ হাজার জন শিক্ষার্থী চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করলো। আর যারা চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করতে পারবে না তাদের কোন সুযোগ থাকবে না।

সিলেকশন রেজাল্ট তৃতীয়ঃ

৩ হাজার রেজাল্টের শেষ জিপিএ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর পয়েন্ট থেকে আবার এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ১ হাজার জন শিক্ষার্থীকে চূড়ান্ত আবেদন করতে দেওয়া হবে।

বাণিজ্য শাখা

সিলেকশন রেজাল্ট প্রথমঃ
মনে করুন বাণিজ্য শাখা থেকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য সম্ভাব্য প্রাথমিক আবেদন সম্পূর্ণ করেছে ৯-১২ হাজার শিক্ষার্থীরা।এদের ভেতর থেকে প্রাথমিকভাবে ৮ হাজার জন শিক্ষার্থী অনলাইনে ইন্টারনেটের মাধ্যমে চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করতে দিবে। দেখা গেলো ৬ হাজার জন শিক্ষার্থী এদের মধ্যে চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করলো। আর যারা চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করলো না তাদের জন্য ২য় বার কোন সুযোগ থাকবে না।

সিলেকশন রেজাল্ট দ্বিতীয়ঃ

৮ হাজার রেজাল্টের শেষ জিপিএ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর পয়েন্ট থেকে আবার এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ২ হাজার জন শিক্ষার্থী অনলাইনের মাধ্যমে চূড়ান্ত আবেদন করতে দিবে। দেখা যাবে এদের মধ্যে ১৫০০ জন শিক্ষার্থী চূড়ান্ত আবেদন সম্পূর্ণ করলো। এছাড়া ৩য় বার চূড়ান্ত আবেদন করার কোন সুযোগ থাকবে না।

সিলেকশন রেজাল্ট তৃতীয়ঃ

২ হাজার রেজাল্টের শেষ জিপিএ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীর পয়েন্ট থেকে আবার এইচএসসিতে সর্বোচ্চ জিপিএ প্রাপ্ত ৫০০ জনকে চূড়ান্ত আবেদন করতে দেওয়া হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker