বাগেরহাট জেলা প্রশাসকের কার্যালয় চাকরি বিজ্ঞপ্তি ২০২১

করোনা মহামারিতে দেশের অসংখ্য মানুষ তাদের কাজ এবং চাকরি হারিয়েছে। চাকরি হারিয়ে অনেক মানুষ পথহারা পথিক হয়ে গেছেন। বর্তমানে দেশের চাকরির বাজার খুব খারাপ অবস্থার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। চাকরির বহু নিয়োগ স্থগিত করা হয়েছে। চাকরির পদের তুলনায় আবেদনকারীর সংখ্যা বেড়েছে প্রায় দ্বিগুণ। বাগেরহাট জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে চাকরির খবর পাওয়া গেছে যার পদ সংখ্যা বলা হয়েছে ৩২ জন। আমরা এখন বাগেরহাট জেলা প্রশাসকের কার্যালয় চাকরির জন্য পদের নাম এবং শিক্ষাগত যোগ্যতা সম্পর্কে আলোচনা করবোঃ

১.জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাটে চাকরি দেওয়া হবে অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক পদে নেওয়া হবে ০৮ জন, বেতন ৯৩০০-২২৪৯০/- যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো এইচএসসি পাশ বা উহার সমমান, কম্পিউটার ব্যবহারের ক্ষেত্রে উহার word processing data entry ও typing এর সর্বনিম্ন গতি বাংলায় ২০ শব্দ ও ইংরেজিতে ৩০ শব্দ হতে হবে।

২.জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাটে চাকরি দেওয়া হবে নাজির কাম ক্যাশিয়ার পদে ০৫ জন, বেতন ৯৩০০-২২৪৯০/- যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো এইচএসসি পাশ বা উহার সমমান এবং কম্পিউটার চালনায় পারদর্শী।

৩.জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাটে চাকরি দেওয়া হবে সার্টিফিকেট পেশকার পদে ০৪ জন, বেতন ৯৩০০-২২৪৯০/- যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো এইচএসসি পাশ বা উহার সমমান এবং কম্পিউটার চালনায় পারদর্শী।

৪.জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাটে চাকরি দেওয়া হবে সার্টিফিকেট সহকারী ০৬ জন, বেতন ৯৩০০-২২৪৯০/- যার শিক্ষাগত যোগ্যতা যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো এইচএসসি পাশ বা উহার সমমান এবং কম্পিউটার চালনায় পারদর্শী।

৫.জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাটে চাকরি দেওয়া হবে ক্রেটি চেকিং কাম সায়রাত সহকারী পদে ০৯ জন, বেতন ৯৩০০-২২৪৯০/- যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো যার শিক্ষাগত যোগ্যতা হলো এইচএসসি পাশ বা উহার সমমান এবং কম্পিউটার চালনায় পারদর্শী। তবে প্রার্থীদের কিছু নিয়ম অনুসরণ করতে হবে যেমন:-

১. প্রার্থীকে স্ব হস্তে নির্ধারিত ফরম পূরণ করতে হবে।

২. প্রার্থীকে অবশ্যই বাগেরহাট জেলার স্থায়িভাব বাসিন্দা এবং বাংলাদেশের স্থায়ী নাগরিক হতে হবে।

৩. চাকরির নির্ধারিত আবেদন ফর্মে সভাপতি, বিভাগীয় বাছাই কমিটি খুলনা ও বিভাগীয় কমিশনার, খুলনাকে সম্বোধন করে আগামী ১৫.০৬.২০২১ খ্রিঃ তারিখের মধ্যে অফিস চলাকালে জেলা প্রশাসক, বাগেরহাটের কাছে ডাকযোগে পৌছাতে হবে। খামের ওপর মেটা কালি দিয়ে পদের নাম, কোটা (যদি থাকে) এবং বাম পাশে আবেদনকারীর পূর্ণ নাম এবং ঠিকানা লিখতে হবে।আবেদন ফরমটি www.bagerhat.gov.bd বাগেরহাট জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাট রাজস্ব শাখায় এবং www.forms.gov.bd ওয়েবসাইট থেকে সংগ্রহ করতে হবে।

৪. প্রার্থীদের বয়সসীমা বলা হয়েছে ০১/০৫/২০২১ খ্রিঃ তারিখে ১৮-৩০ বছর। তবে আরো বলা হয়েছে বীর মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তানের ক্ষেত্রে বয়সসীমা ৩২ বছর। এছাড়াও আরো বলা হয়েছে বয়সের ক্ষেত্রে কোনো এফিডেভিট গ্রহণ করা হবেনা।

৫. জেলা প্রশাসকের কার্যালয় বাগেরহাটে চাকরির জন্য আরো বলা হয়েছে আবেদনের সাথে নিম্নোক্ত কাগজপত্র সংযুক্ত করতে হবে ;

(ক) সদ্য তোলা সত্যায়িত ৩কপি ৫×৫ সে.মি আকারের রঙিন ছবি আবেদনের নির্ধারিত স্থানে সংযুক্ত করতে হবে এবং ২কপি স্ট্যাম্প সাইজের রঙিন ছবি দাখিল করতে হবে। সত্যায়ন কর্মকর্তার নাম, পদবিযুক্ত স্পষ্ট সীল থাকতে হবে।

(খ) নাগরিকত্ব সনদপত্র

(গ) শিক্ষাগত যোগ্যতা ও সকল অভিজ্ঞতার সনদপত্রের সত্যায়িত ফটোকপি

(ঘ) প্রার্থী শহীদ মুক্তিযোদ্ধার সন্তান/মুক্তিযোদ্ধার পোষ্য হলে মুক্তিযোদ্ধা কোটায় আবেদিত চাকুরি প্রার্থীদের নির্ধারিত ফরমের সাথে নিম্নোক্ত ছকে উল্লিখিত তথ্যাদি পূরণ পূর্বক সনদের সত্যায়িত কপি আবেদন ফরমের সাথে দাখিল করতে হবে:

(১) প্রার্থীর নাম (২)মুক্তিযোদ্ধার নাম (৩) মুক্তিযোদ্ধার পিতার নাম (৪) মুক্তিযোদ্ধার স্থায়ী ঠিকানা (৫) মুক্তিযোদ্ধার জাতীয় পরিচয়পত্র, পিতা-মাতার জাতীয় পরিচয়পত্র (৬) মুক্তিযোদ্ধার সনদ নাম্বার, মুক্তিবার্তার নম্বর ও তারিখ (৭) গেজেট নম্বর ও তারিখ (৮) মন্ত্রনালয়ের সনদ নম্বর, তারিখ ও স্মারক নম্বর (৯) বামুস সনদ নম্বর, তারিখ ও স্মারক নম্বর (১০) মুক্তিযোদ্ধার নাতি নাতনি দাবি করার ক্ষেত্রে প্রার্থীর জাতীয় পরিচয়পত্র, প্রার্থীর পিতা, মাতার জাতীয় পরিচয়পত্র (১১) মুক্তিযোদ্ধার উত্তরাধিকারী সনদপত্র, পোষ্যদের ক্ষেত্রে প্রার্থীর পিতামাতার নাগরিকত্ব সনদযুক্ত প্রমাণক (১২) মন্তব্য।

(ঙ) ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে পরীক্ষার ফি বাবদ কোড নং- ১-০৭৪২-০০০০-২০৩১ তে ১০০/- টাকা জমা প্রদান করে ট্রেজারি চালানের মূলকপি আবেদনপত্রের সাথে যুক্ত করতে হবে।

(চ) পদের নাম ও প্রার্থীর নাম সংবলিত ১০/- টাকার ডাকটিকিট লাগানো ১টি ১০×৪.৫ ইঞ্চি ফেরত খাম আবেদনের সাথে সংযুক্ত করতে হবে।

(ছ) চাকরিরত প্রার্থীদেরকে যথাযথ কতৃপক্ষের মাধ্যমে নির্ধারিত সময়ের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে।

(জ) সরকারী নীতিমালা মোতাবেক মুক্তিযোদ্ধার সন্তান/মহিলা/আনসার ভিডিপি/এতিম/শারীরিক প্রতিবন্ধী/ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর প্রার্থীদের জন্য কোটা সংক্রান্ত সরকারি বিধিনিষেধ অনুসরণ করা হবে। এক্ষেত্রে প্রার্থীকে তার দাবির সমর্থনে যথাযথ কতৃপক্ষ কতৃক প্রদত্ত সনদ/প্রমাণপত্রের সত্যায়িত কপি জমা দিতে হবে।

(ঝ) লিখিত পরীক্ষায় নির্বাচিত প্রার্থীদের মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সময় নাগরিকত্ব সনদপত্র, জাতীয় পরিচয়পত্র/জন্ম নিবন্ধন সনদ, শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদ, কম্পিউটার পরিচালনার অভিজ্ঞতার সনদ, ও কোটা সম্পর্কিত প্রমাণক সনদের মূলকপি উপস্থাপন করতে হবে।

(ঞ) নিয়োগের ব্যাপারে কোনো সুপারিশ বা তদবির প্রার্থীর যোগ্যতার পরিপন্থী বলে বিবেচিত হবে।

এবং ইতিপূর্বে যারা আবেদন করেছেন তাদের নতুন করে আবেদন করার প্রয়োজন নেই, জেলা প্রশাসন, বাগেরহাট। সূত্র যুগান্তর ৫/৫/২০২১ (পৃঃ৮) জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বাগেরহাটে চাকরির জন্য উল্লেখিত নিয়ম অনুসারে আবেদন করার জন্য বলা হয়েছে।

Leave a Comment